সিলেটে প্রথম নারী সাবরেজিস্ট্রারহলেন পারভীন আক্তা

সিলেটে ডেস্কঃ সিলেটে সদরে প্রথম নারী সাব রেজিস্ট্রার হলেন কুমিল্লার পারভীন আক্তার। স্বাধীনতা
পূর্ববর্তী বছর থেকে এই প্রথম নারী সাব রেজিস্ট্রার হিসেবে যোগদান করেছেন।
গত ৭ এপ্রিল তিনি সিলেট সদর সাব রেজিষ্ট্রার যোগদান করেন। এরআগে তিনি কুমিল্লা
জেলার বুড়িচংয়ে সাবরেজিস্ট্রার পদে কর্মরত ছিলেন। পরভীন আক্তার কুমিল্লার মুরাদ নগরের
বাসিন্দা।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ১৯৭০ সাল থেকে সিলেট সদর সাব রেজিস্ট্রার হিসেবে কাজ
করে গেছেন ২৬ জন কর্মকর্তা। তাদের সকলেই ছিলেন পুরুষ। এছাড়া এসব সাব রেজিস্ট্রারদের
অনেকের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময়ে জমির কাগজ জাল-জালিয়াতিসহ অনিয়মের অভিযোগ ওঠে।
বালাম বইয়ে পাতা ছেঁড়ার ঘটনায়ও তোলকালাম ঘটে। এ ধরণের একটি গুরুত্বপূর্ণ
প্রতিষ্ঠানে দায়িত্ব পালন অনেকটা চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছেন, বলেন সাব রেজিস্ট্রার পরভীন
আক্তার।
তিনি বলেন, সেবা গ্রহীতারা যাতে কোনো ধরণের ভোগান্তির শিকার না হন এবং
কোনো ধরণের অনিয়ম যাতে না হয়, সেদিকে জোর দিয়ে কাজ করা হবে। প্রথম নারী সদস্য
হিসেবে সুনামের সঙ্গে কাজ করে যেতে সকলের সযোগীতা চেয়েছেন তিনি।
এ বিষয়ে দলিলে লেখক কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম মহাসচিব ফরিদুর রহমান বলেন, এবারই প্রথম
নারী সাব রেজিস্ট্রার পেয়েছে সিলেট। তাঁর কর্মকাণ্ডে অফিসের কার্যক্রম আরো গতিশীল
হবে আশাবাদি তিনি।
দলিল লেখক সমিতির সাবেক সাধারন সম্পাদক হাজী মইনুল ইসলাম খান সায়েক বলেন- নতুন
নারী সাব-রেজিস্ট্রার যোগদান করার পর থেকে অফিসের নিয়ম শৃঙ্খলা অনেকটাই ফিরে
এসেছে। নকল নবিস এসোসিয়েশনের বিভাগীয় সভাপতি বাবু তপন কান্তি দে বলেন- সদর
সাবরেজিস্ট্রার অফিসের ইতিহাসে প্রথম মহিলা রেজিস্ট্ধসঢ়;্রার যোগদান করায় আমরা তাকে
স্বাগত জানাই। সেই সাথে দূর্নীতি প্রতিরোধ করতে তিনি সাহসী ভূমিকা পালন
করবেন। এসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আতিকুর রহমান বলেন-
দীর্ঘদিন আমরা কাজ কর্ম থেকে বিরত ছিলাম এখন নুতন সাব রেজিস্ট্রার যোগদান করায়
আমরা নিয়মিত কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। এ বিষয়ে ভূক্তভোগী হেতিমগঞ্জের জামাল উদ্দিন সুহেল
বলেন, আগে অফিসে এসে নকল তুলতে গেলে অনেক দূর্ভোগ পোহাতে হত অন্ত্যত পক্ষে ৫-
৬মাস গড়াত কিন্তু এখন নতুন সাব রেজিস্ট্রার যোগদান করায় আমরা খুব দ্রুত গতিতে
একদিনে নকল উত্তোলন করতে পারছি।
এদিকে, যোগদানের পর থেকে নিন্দুকেরা তাকে নিয়ে মাতামাতি শুরু করে দিয়েছেন।
যোগদানের পর থেকেই পারভীন আক্তার অফিসের অনিয়ম দুর্নীতি প্রতিরোধে স্বোচ্চার হয়ে
ওঠেছেন। তিনি বিভিন্ন বিষয়ে নোটিশ জারি করেছেন সেবা গ্রহীতাদের সুবিধার্থে।
এক নোটিশে দেখা যায়, ১৬ এপ্রিল থেকে দলিল লেখকদের সকাল ১০ টা থেকে ৩টা পর্যন্ত
দলিল দাখিলের সময় ধার্য্য করে দিয়েছেন। মোসাবিদাকারী নিজে দলিল দাখিল করতে হবে এবং
সঙ্গে পারিশ্রমিকের রশিদ দিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া ভিজিট কমিশন কারণ
উল্লেখ পূর্বক অথবা ডাক্তারি সার্টিফিকেটসহ বিকেল ৩টা থেকে ৪ টার মধ্যে আবেদন
করার জন্য নোটিশে উল্লেখ করেছেন তিনি।

সংবাদকর্মি নিয়োগ চলছেঃ-

দেশের সকল জেলা উপজেলাইয় সংবাদকর্মি নিয়োগ চলছে । আমাদের সাথে কাজ করতে সরাসরি যোগাযুগ করুন ০১৭১১০০০২১৪