আইএসের ‘নয়া খলিফা’ আবু ইব্রাহিম আল হাশিমি আল কুরেশি

আন্তর্জাতিকঃঃ আইএস’এর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টস থেকে এদিন একটি অডিয়ো রিলিজ করা হয়। সেখানে ইসলামিক জঙ্গি সংগঠনটির মুখপাত্র আবু হামজা আল কুরেশির বিবৃতি রয়েছে। অডিয়ো বিবৃতিতে আইএস’এর মুখপাত্র বাগদাদির মৃত্যুর খবর স্বীকার করে, নয়া খলিফার নাম জানিয়ে দেন।
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের দাবিতে সিলমোহর দিয়ে আবু বকর আল-বাগদাদির মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করল ইসলামিক স্টেট। আবু ইব্রাহিম আল হাশিমি আল কুরেশি আইএসের ‘নয়া খলিফা’।

আন্তর্জাতিক জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএসের) নেতা আবু বকর আল-বাগদাদির একটি ভিডিও প্রকাশিত হয়েছে আজ সোমবার
ফাইল ছবি
আইএস’এর সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টস থেকে এদিন একটি অডিয়ো রিলিজ করা হয়। আইএস’এর আগের মুখপাত্র ছিলেন আবু হাসান আল-মুহাজির। তিনিও নিহত হয়েছেন বলে এদিন জানিয়েছে আইসিস।

এদিনের বিবৃতিতে আমেরিকার উদ্দেশে হুমকিও রয়েছে। মার্কিন প্রেসিডেন্টকে ‘জরাগ্রস্ত বৃদ্ধ’ হিসেবে উল্লেখ করে আইএস’এর মুখপাত্র হুঁশিয়ারির সুরে বলেন, বাগদাদির নেতৃত্বে যা হয়েছে, তুলনায় তার থেকেও ভয়ানক দিন আসতে চলেছে। তিনি বলেন, বাগদাদির মৃত্যুতে ইসলামিক স্টেটের এক প্রধান মুছে গিয়েছেন ঠিকই, কিন্তু সংগঠনটি বেঁচেবর্তে রয়েছে।

আইসিসের প্রধান আবু বকর আল-বাগদাদি নিহত হওয়ার ঠিক দু-দিনের মাথায় ইসলামিক এই জঙ্গি সংগঠনে বাগদাদির অন্যতম উত্তরসূরি নিহত হয়েছেন বলে ২৯ অক্টোবর দাবি করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এক ট্যুইট বার্তায় এ কথা জানান মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলি এদিন ডোনাল্ড ট্রাম্পের উদ্ধৃতি দিয়ে দাবি করে, মার্কিন সেনাদের হাতে ইসলামিক স্টেটের নেতা আবু বকর আল-বাগদাদির অন্যতম উত্তরসূরি নিহত হয়েছেন। নিহত ওই নেতাই বাগদাদির উত্তরসূতি হিসেবে এক নম্বরে ছিল বলে দাবি আমেরিকার প্রেসিডেন্টের। ডোনাল্ড ট্রাম্প এই মাত্র এ খবর শুনেছেন বলে, ট্যুইট বার্তায় নিশ্চিত করা হয়।

তিনি আরও বলেন, বাগদাদির অবর্তমানে আইএসে তার উত্তরসূরি হিসেবে স্থলাভিষিক্ত হওয়ার কথা ছিল ওই নেতারই। এখন সে মৃত। যদিও একবারের জন্যও নিহত আইএস নেতার নাম করেননি ডোনাল্ড ট্রাম্প। তবে, সোমবার, ২৮ অক্টোবর, আবু আল হাসান আল মুজাহির নামে আইএসের অপর এক নেতা নিহত হয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ওই নেতার কথাই ট্রাম্প উল্লেখ করেছেন কি না, সে বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এই অভিযানের পর থেকে বিশ্ব নেতারা সতর্ক থাকতে বলেছেন। এর প্রতিশোধ নিতে আইএস বিশ্বজুড়ে হুমকি হয়ে দাঁড়াতে পারে বলে মনে করছেন তাঁরা।

জঙ্গি সংগঠন আইএসের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান আল বাগদাদি। অনেক দিন ধরেই আমেরিকা তাকে খুঁজছিল। গত ২৭ অক্টোবর সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে থাকা বাগদাদির গোপন আস্তানা লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালায় মার্কিন স্পেশাল ফোর্স। ওই অভিযান চলাকালীন আইএস নেতার পরনে ছিল সুইসাইড ভেস্ট। পরে সেটি বিস্ফোরণের মাধ্যমেই তার মৃত্যু হয়।

পিবিএ

সংবাদকর্মি নিয়োগ চলছেঃ-

দেশের সকল জেলা উপজেলাইয় সংবাদকর্মি নিয়োগ চলছে । আমাদের সাথে কাজ করতে সরাসরি যোগাযুগ করুন ০১৭১১০০০২১৪