স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে দুইদিন আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগে আটক ১

6

অনলাইন ডেস্কঃ টাঙ্গাইলের সখীপুরে অষ্টম শ্রেণি পড়ূয়া স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে দুই দিন আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ওই স্কুলছাত্রীকে উপজেলার মুচারিয়া পাথার এলাকা থেকে উদ্ধার এবং নাজমুল হাসান (২২) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

এ ঘটনায় শুক্রবার মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে নাজমুল হাসানসহ অজ্ঞাত দুই-তিনজনকে আসামি করে সখীপুর থানায় অপহরণ ও ধর্ষণ মামলা করেন।

পুলিশ জানিয়েছে, শুক্রবার সকালে গ্রেপ্তার নাজমুল হাসানকে টাঙ্গাইল আদালতে ও মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নাজমুল সখীপুর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের ওসমান গনির ছেলে।

জানা যায়, গত ১৯ নভেম্বর মেয়েটি তার ছোট ভাইকে (চাচাতো) প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা দেওয়ানোর জন্য সখীপুর পিএম পাইলট মডেল সরকারি স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রে নিয়ে যায়। সকাল ১১টার দিকে পরীক্ষা কেন্দ্রের গেট থেকে নাজমুল হাসানসহ অজ্ঞাত কয়েকজন মেয়েটির মুখ চেপে ধরে সিএনজি অটোরিকশায় তুলে নিয়ে যায়। পরিবারের লোকজন অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে বৃহস্পতিবার সখীপুর থানায় অভিযোগ করেন।

সখীপুর থানার ওসি মো. আমির হোসেন বলেন, অভিযোগ পেয়েই অপহৃত স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করা হয়েছে। একই সঙ্গে অপহরণ ও ধর্ষণে জড়িত নাজমুলকে গ্রেপ্তার করে টাঙ্গাইল আদালতে পাঠানো হয়েছে। জড়িত অন্য সহযোগীদেরও গ্রেপ্তারে কাজ করছে পুলিশ।

পিবিএ/এমএসএম